সর্বশেষ সংবাদ
হোম / Featured / রাজাকারের চেয়ে খন্দকার মোশতাক’রা বেশি ভয়ংকর – শামীম ওসমান

রাজাকারের চেয়ে খন্দকার মোশতাক’রা বেশি ভয়ংকর – শামীম ওসমান

রাজাকারের চেয়ে খন্দকার মোশতাকরা বেশি ভয়ঙ্কর! নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সাংসদ একেএম শামীম ওসমান। শনিবার (১১ জানুয়ারি) সদর উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে এক সভায় শামীম ওসমান বলেছেন, ‘আমরা কেবল রাজাকার, রাজাকার, আল-বদর, আল-বদর বলে চিল্লাচ্ছি। রাজাকার আল-বদরেরও একটা নীতি ছিল। ওরা পাকিস্তানে বিশ্বাস করতো। ওরা ওদের পাপের শাস্তি পেয়েছে। কিন্তু রাজাকার বেশি ভয়ঙ্কর নাকি খন্দকার মোশতাকরা? পেছন থেকে দরজাটা খুলে দিয়েছিল কে?’

সদর উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। সভায় শামীম ওসমান আরও বলেন, ‘সারা বাংলাদেশে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে কত ঘনঘটা। তাহলে পঁচাত্তরের ১৫ আগস্ট যেদিন বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হলো সেদিন আমরা কোথায় ছিলাম? সেদিন এইভাবে জেগে উঠতে পারি নাই কেন? ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররা সেদিন রাস্তায় বের হতে পারলো না কেন? এই প্রশ্নগুলো তো আসতেই পারে। অনেকে এটাকে অন্যভাবে নেন। আসল কারণ হচ্ছে আমরা একটু অপ্রস্তুত ছিলাম।’

তিনি বলেন, ‘আমরা বিশ্বাস করতে পারি নাই। পাকিস্তানি বাহিনী যাকে স্পর্শ করতে পারে নাই কিন্তু দুঃখজনক হলেও এই দেশেই মাত্র সাড়ে তিন বছরের মাথায় আমরা এই লোকটিকে মেরে ফেললাম। বিদেশ থেকে কেউ আসে নাই। বঙ্গবন্ধু কন্যা বেঁচে না থাকলে হয়তো বঙ্গবন্ধু রাষ্ট্রদ্রোহী আর মুক্তিযোদ্ধাদের রাজাকার হিসেবে সাজা হতো।’

সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাহিদা বারিকের সভাপতিত্বে এ সময় উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. জসিম উদ্দিন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল হাই, সাধারণ সম্পাদক আবু হাসনাত শহীদ মো. বাদল, মহানগর আওয়ামী লীগের সহসভাপতি চন্দন শীল, মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক শাহ নিজাম, মহানগর যুবলীগের সভাপতি শাহাদাত হোসেন ভুঁইয়া সাজনু, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আজিজুর রহমান আজিজ, সাধারণ সম্পাদক আশরাফুল ইসমাইল রাফেল প্রমুখ।

আজকের জনপ্রিয় সংবাদ

নাঃগঞ্জ সদর ওসি তদন্ত কর্মকর্তা কে আদালতে তলব

স্কুল ছাত্রী জিসা মনি অপহরণ মামলায় সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ও মামলার বর্তমান …